• ঢাকা, বাংলাদেশ রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৮:৩০ অপরাহ্ন

ডেঙ্গু প্রতিরোধে রাজশাহীতে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান শুরু

রিপোর্টার নাম:
আপডেট শনিবার, ১৫ জুলাই, ২০২৩

রাসিকের অভিযানে দুই প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক
রাজশাহী মহানগরীতে ডেঙ্গু প্রতিরোধ ও এডিস মশার প্রজননস্থল ধ্বংসে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেছে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশন। এ সময় এডিস মশা ও লার্ভা পাওয়ায় দুই প্রতিষ্ঠানকে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। অভিযান পরিচালনা করেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ও সচিব মো. মশিউর রহমান।
শনিবার বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১টায় পর্যন্ত নগরীর বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালানো হয়। নগর ভবন হতে স্টেশন ভাংড়ি পট্টি হয়ে পদ্মা আবাসিক, উপরভদ্রা হয়ে দড়িখরবনা উপশহর সড়ক হয়ে পুনরায় নগর ভবন পর্যন্ত বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ও বাসা বাড়িতে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় এডিস মশা ও মশার লার্ভা পাওয়ায় পদ্মা আবাসিক এলাকার আদ দ্বীন প্রোপ্রাটিজ এবং বাবুল ফিলিং স্টেশনকে দÐবিধি-১৮৬০ এর ২৬৯ ধারায় ১০ হাজার করে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।
একই সময় রাস্তা ও ফুটপাত দখল করে অবৈধভাবে নির্মাণ সামগ্রী রাখার দায়ে স্থানীয় সরকার (সিটি কর্পোরেশন) আইন,২০০৯ এর ৯২(৭) ধারায় তিন জনকে ১১হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
অভিযানকালে উপস্থিত ছিলেন বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) কার্যালয়ের জেলা কিটতত্ববিদ উম্মে হাবিবা, কিটতত্বীয় টেকনিশিয়ান আব্দুল বারী, রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের উপ-প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা সেলিম রেজা রঞ্জু, মশক কর্মকর্তা (মনিটরিং) সৈয়দ জুবায়ের হোসেন মুন, জনসংযোগ কর্মকর্তা মোস্তাফিজ মিশু, ম্যাজিস্ট্রেট শাখার বেঞ্চ সহকারী হাবিবুর রহমান।
এদিকে, রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রতিদিনই ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। এত দিন আক্রান্ত রোগীদের ভ্রমণ ইতিহাস থাকলেও এখন রাজশাহীতেই স্থানীয়ভাবে ডেঙ্গু রোগী ভর্তি হওয়া শুরু হয়েছে।
হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলছে, এভাবে রোগী বাড়তে থাকলে একসময় তাদের সেবা দেওয়া দুরূহ হয়ে পড়বে। এ উদ্বেগের কথা জানিয়ে হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এফ এম শামীম আহাম্মদ রাজশাহী সিটি করপোরেশনের স্বাস্থ্য কর্মকর্তাকে গত মঙ্গলবার একটি চিঠি দিয়েছেন। চিঠিতে তিনি জরুরি ভিত্তিতে সচেতনতা বাড়ানোসহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার অনুরোধ করেছেন।
চিঠিতে বলা হয়, ‘১৫ জুন থেকে ১৪ জুলাই পর্যন্ত রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৬৬ জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি হয়েছেন। এর মধ্যে ৬২ জন ডেঙ্গ রোগীই ঢাকা ভ্রমণকারী। বাকি চারজন ঢাকা ভ্রমণ করেননি। হাসপাতালে বিশেষায়িত ওয়ার্ড প্রস্তুত করে ডেঙ্গু রোগীদের প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষাসহ যথাযথ চিকিৎসাসেবা দেওয়া হচ্ছে। জটিল ডেঙ্গু রোগীদের জন্য আইসিইউসহ অন্যান্য সেবাও প্রস্তুত রাখা হয়েছে। রাজশাহীতে ডেঙ্গু রোগ ছড়াতে শুরু করেছে। ডেঙ্গু এডিস মশাবাহিত রোগ, যা নির্মূল বা নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব। রাজশাহীতে ডেঙ্গু রোগ অনিয়ন্ত্রিতভাবে ছড়িয়ে পড়লে হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা দেওয়া কষ্টকর হয়ে পড়বে। বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে জরুরি ভিত্তিতে মশকনিধন, সচেতনতা সৃষ্টিসহ বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহণ করে ডেঙ্গু প্রতিরোধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।
এদিকে, শনিবার রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টার ডেঙ্গু প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, হাসপাতালে নতুন করে আরও ৫জন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি হয়েছেন। আগে থেকে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন ১৯ জন। এর মধ্যে ২জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন। নতুন ও পুরোনো রোগী মিলিয়ে হাসপাতালের ডেঙ্গু ওয়ার্ডে ২২ জন রোগী ভর্তি আছেন। চলতি ডেঙ্গু মৌসুমে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে রামেক হাসপাতালে ভর্তি হন ৭১ জন। এর মধ্যে ৪৮ জন হাসপাতাল ছেড়েছেন। আর একজন মারা গেছেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

এই ক্যাটাগরিতে আরো নিউজ
%d