• ঢাকা, বাংলাদেশ বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০:৫০ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
রাজশাহীতে সম্ভাবনাময় কর্মসংস্থানের খাত প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে চলার নামইতো সাংবাদিকতা জমকালো আয়োজনে রাজশাহী সংবাদের বর্ষপিূর্তি উদযাপন শেখ হাসিনার হাত ধরেই এগিয়ে যাবে বাংলাদেশ: জাতীয় সংসদে প্রথম বক্তব্যে আসাদ শাহীন স্কুল রাজশাহী শাখার বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরষ্কার বিতরণ বিজয় প্রতিবন্ধী উন্নয়ন সংস্থার বার্ষিক বনভোজন ও পুরস্কার বিতরণ ট্যুর মুরল্যান্ডের একযুগ পূর্তি উপলক্ষে আনন্দ শোভাযাত্রা ও র‌্যালি রাজশাহীর আওয়ামী লীগ কর্মী নয়লাল হত্যাকাণ্ডের বিচার দাবিতে মানববন্ধন রাজশাহী টিভি জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের নির্বাচন ২৪ ফেব্রুয়ারি আওয়ামী লীগ নেতা পিন্টু আর নেই

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে জি-২০ বৈঠক, বয়কটের ঘোষণা চীনের

রিপোর্টার নাম:
আপডেট সোমবার, ২২ মে, ২০২৩

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে জি-২০ জোটের ‘পর্যটন বিষয়ক’ বৈঠক বয়কটের ঘোষণা দিয়েছে চীন। দেশটি জানিয়েছে, বিরোধপূর্ণ অঞ্চলে অনুষ্ঠিত কোনো বৈঠকে তারা অংশ নেবে না।

বিশ্বের ২০ বৃহৎ অর্থনীতির দেশ নিয়ে গঠিত জোট হলো জি-২০। রোটেশন ভিত্তিতে এ বছর জোটটির প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করছে ভারত। এর অংশ হিসেবে দেশটি বিভিন্ন জায়গায় বৈঠকের আয়োজন করছে। আর জি-২০ জোটের পর্যটন বিষয়ক বৈঠকের স্থান হিসেবে কাশ্মীরকে বেঁছে নিয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সরকার।

তবে পাকিস্তান ও চীন শুরু থেকেই এর বিরোধীতা করে আসছিল। হিমালয়ের কাছে অবস্থিত কাশ্মীরের অর্ধেক নিয়ন্ত্রণ করে ভারত আর বাকি অর্ধেক রয়েছে পাকিস্তানের অধীনে। তবে দুই দেশই পুরো কাশ্মীরকে নিজেদের অঞ্চল হিসেবে দাবি করে।

১৯৪৭ সালে ব্রিটিশ শাসন থেকে স্বাধীনতা লাভের পর কাশ্মীর নিয়ে তিনবার যুদ্ধে জড়িয়েছে ভারত-পাকিস্তান।

কাশ্মীরে জি-২০ বৈঠক বয়কটের ঘোষণা দিয়ে শুক্রবার (১৯ মে) চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ওয়াং ওয়েনবিন বলেছেন, ‘বিরোধপুর্ণ অঞ্চলে জি-২০ জোটের যে কোনো বৈঠকের তীব্র বিরোধীতা করে চীন এবং এ ধরনের বৈঠকে আমরা অংশ নেব না।’

এদিকে ২০১৯ সালে মোদি সরকার কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা রহিত করে এবং এটিকে ভারতের যুক্তরাষ্ট্রীয় ব্যবস্থার অধীনে নিয়ে আসে। এরপর থেকে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যকার সম্পর্ক আরও খারাপ হয়েছে।

ভারতের নিয়ন্ত্রণে কাশ্মীরের যে অংশটি রয়েছে সেখানে স্বাধীনতাপন্থি কিছু সশস্ত্র দল রয়েছে। তারা ভারত থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে আলাদা স্বাধীন রাষ্ট্র অথবা পাকিস্তানের সঙ্গে এক হতে চায়।

এদিকে কাশ্মীরের রাজধানী শ্রীনগরে হবে জি-২০ জোটের পর্যটন বিষয়ক বৈঠকটি। এর অংশ হিসেবে সেখানে নিরাপত্তা জোরদার করেছে ভারত। অঞ্চলটিতে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বিশেষ সেনা কমান্ডোদের। আগামী ২২ থেকে ২৪ মে হবে বৈঠকটি। এতে ৬০ জন প্রতিনিধি অংশ নিতে পারেন। চীন ছাড়াও তুরস্ক ও সৌদি আরবও কাশ্মীরের বৈঠকটি বয়কট করবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

এই ক্যাটাগরিতে আরো নিউজ
%d